Quantcast
  • বৃহস্পতিবার, ১০ আষাঢ় ১৪২৮, ২৪ জুন ২০২১

কালীগঞ্জ ক্লিনিক থেকে চুরি হওয়া নবজাতক, ১৬ ঘণ্টা পর উদ্ধার !


সাতকাহন ডেস্ক | আপডেট: ১৩:৫৮, এপ্রিল ২৭, ২০২১
 
 
 
 


ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ শহরের একটি প্রাইভেট ক্লিনিক থেকে এক কন্যা সন্তান চুরি হয়েছে । সোমবার (২৬ এপ্রিল) সন্ধ্যার দিকে এক অপরিচিত নারী বাচ্চাটিকে নিয়ে গেছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। শিশুটি কালীগঞ্জ পৌর সভার বালিদাপাড়া ইজিবাইক চালক মনিরুল ইসলামের সন্তান। বাচ্চাটি হারিয়ে যাওয়ার পর স্বজনরা বিক্ষুব্ধ হয়ে উঠে এবং ক্লিনিক মালিক ও সংবাদকর্মীদের ওপর হামলা করে।একাধিক সূত্রে জানাযায়, সিজারের তিন ঘণ্টা পর এক কন্যাশিশু চুরির ঘটনা ঘটে। এরপর শিশুটির বাবা মনিরুল ইসলাম স্থানীয় থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। মামলা দায়েরের পর র‌্যাব অভিযান চালিয়ে মঙ্গলবার ( ২৭ এপ্রিল ) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে কালীগঞ্জ শহরের নিশ্চিতপুর দাশপাড়া জাহাঙ্গীর হোসেনের বাড়ি থেকে শিশুটিকে উদ্ধার করে তার মায়ের কোলে ফিরিয়ে দেন।এ সময় জাহাঙ্গীর হোসেনের স্ত্রী প্রিয়া খাতুনকে আটক করে থানায় সোপর্দ করে র‌্যাব।ঝিনাইদহ র‌্যাবের কমান্ডার কামাল উদ্দিন জানান, সোমবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে ক্লিনিকের ২০৩ নম্বর কেবিন থেকে নবজাতকটি চুরি হয়ে যায়। সিজারের মাধ্যমে মনিরুল ইসলাম ও শাবানা দম্পতির এই কন্যা সন্তানের জন্ম হয়