Quantcast
  • শুক্রবার, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ২৭ নভেম্বর ২০২০

মাকে ফেলে রেখে সন্তান উধাও!


সাতকাহন ডেস্ক | আপডেট: ২১:৫৯, নভেম্বর ১৩, ২০২০
 
 
 
 



কঙ্কালসার শরীর । কারো সহযোগিতা ছাড়া নড়াচড়াও করতে পারেন না । মাঝেমধ্যে মুখ নেড়ে কিছু একটা বলার চেষ্টা করেন । বয়স বেশি হওয়ার কারনে  হচ্ছে কেউ কেউ দাবি করছেন । আবার অনেকে ভাবছেন অপুষ্টিতে এমন কঙ্কালসার হয়েছে শরীর ।


 শুক্রবার  সকালে গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্যকম্প্রেক্রে সত্তরোর্ধ এক বৃদ্ধা মাকে  স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগে  রেখে এক যুবক উধাও হওয়ার ঘটনা ঘটেছে।

 অসুস্থ অবস্থায় বাক্শক্তি না থাকায় অজ্ঞাত ওই বৃদ্ধার নাম, পরিচয় জানা সম্ভব হয়নি।সরেজমিনে দেখা যায়, বয়সের ভারে ন্যুব্জ হয়ে পড়েছেন সত্তরোর্ধ্ব ওই বৃদ্ধা। তার শরীরে বাসা বেঁধেছে নানা  জটিল রোগে । হাসপাতাল ওয়ার্ডে নির্বাক হয়ে শুয়ে আছেন তিনি। দীর্ঘদিন অসুস্থ থাকায় তার শরীরের একাধিক অংশের চামড়া খসে পড়েছে। তার দুই চোখ বন্ধ থাকলেও পানি টলমল। চোখেমুখে তার কষ্টের ছাপ। কিছু জানতে চাইলে শুধু ইশারা করেন। মুখ ফুটে কিছু বলতে পারছেন না তিনি।উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সিনিয়র স্টাফ নার্স নাজবুন্নার বিথি বলেন, মনে হচ্ছে দীর্ঘদিন ধরে নানা রোগে ভুগছেন তিনি। স্বজনরা তাকে চিকিৎসাও করায়নি। উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা ডা. প্রণয় ভূষণ দাস বলেন, বয়স বেশি হওয়ায় বৃদ্ধার শারীরিক অবস্থা অনেক দুর্বল। বৃদ্ধার স্বজনের সন্ধ্যান পাওয়া না যাওয়া পর্যন্ত তত দিন হাসপাতালের ডাক্তার ও নার্সের মাধ্যমে ওই বৃদ্ধা মায়ের শুশ্রুষা ও চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হবে।