Quantcast
  • বুধবার, ৬ কার্তিক ১৪২৭, ২১ অক্টোবর ২০২০

মায়ের মৃত্যু পর্যন্ত হাসপাতালের জানালায় বসে ছেলের অপেক্ষা


সাতকাহন | আপডেট: ২০:২৩, জুলাই ২৭, ২০২০
 
 
 
 


বিশ্বজুড়ে করোনায় বহু মানুষের মৃত্যু হয়েছে। কাছের মানুষদের কেড়ে নিচ্ছে প্রাণঘাতী এই ভাইরাস। অসহায়ভাবে চোখের সামনে স্বজনদের মৃত্যু মেনে নিতে পারছে না কেউ। তবুও তাকিয়ে দেখা ছাড়া যেন আর কোনো উপায় নেই কারো।এদিকে, সম্প্রতি সামাজিক মাধ্যমে একটি ছবি ভাইরাল হয়েছে। একটি বহুতল হাসপাতালের কয়েকতলা ওপরে কাচের দেওয়ালের পাশে ভিতরের দিকে তাকিয়ে বসে আছেন এক ব্যক্তি। বয়স বেশি নয়। কিন্তু কেন এভাবে হাসপাতালের জানালার পাশে বসে আছেন তিনি? সে বিষয়ে সন্ধান করতেই বেরিয়ে আসে অবাক করা তথ্য।


ওই ব্যক্তির নাম জিহাদ আল সুয়াইতি। বয়স ৩০ বছর। তার মা করোনায় আক্রান্ত হয়ে ওই হাসপাতালেই ভর্তি হয়েছিলেন। সরকারি হাসপাতালের ইন্টেনসিভ কেয়ার ইউনিটে ভর্তি মাকে দেখতে যাওয়ার অনুমতি পায়নি ছেলে।তাই সে অপেক্ষা করেছে জানালার পাশে বসে। শেষ সময়ে মায়ের কাছ থেকে সরে যেতে চায়নি। জানালা দিয়েই সে দেখেছে তার মা মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ছে।যতদিন তার মা হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন, ততদিন রোজ রাতেই ওই জানালার ধারে বসে থাকতেন ওই যুবক। মোহাম্মদ সাফা নামে একজন এই ছবিটি শেয়ার করেছেন।ওই ব্যক্তির মায়ের আগে থেকেই ছিল লিউকোমিয়া। বেশ অসুস্থ থাকায় তাকে ভর্তি থাকতে হয়েছিল হাসপাতালে। জিহাদ আল সুয়াইতি বলেন, আমার খুব অসহায় লাগতো। তাই হাসপাতালের জানালার ধারে বসে থাকতাম মাকে দেখতে।প্রতিদিনই হেব্রন স্টেট হাসপাতালে বসে থাকতে দেখা গেছে তাকে। কিন্তু ছেলেকে একা করে দিয়ে শেষ পর্যন্ত পৃথিবী থেকে বিদায় নিয়েছেন তার মা রেশনি সুয়াইতি।